শনিবার,

২২ জানুয়ারি ২০২২

|

মাঘ ৯ ১৪২৮

XFilesBd

শিরোনাম

বাংলাদেশ পুলিশ শান্তি-শৃঙ্খলা রক্ষায় কাজ করে চলেছে: প্রধানমন্ত্রী সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রণে র‌্যাব প্রশংসনীয় ভূমিকা রাখছে : তথ্যমন্ত্রী অতিরিক্ত আইজিপি হলেন মনিরুলসহ ৭ কর্মকর্তা শাবিপ্রবি শিক্ষার্থীদের কাফনের কাপড় পরে মৌন মিছিল বিশ্বব্যাপী কোভিড সংক্রমণ ৩৪ কোটি ছাড়িয়েছে বিপিএল: পরিস্থিতি বুঝে পাল্টাবে সিদ্ধান্ত- বিসিবি অনশনরত শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কথা বলেছেন শিক্ষামন্ত্রী সংক্রমণ কমলে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলবে : শিক্ষামন্ত্রী সিলেটের শাহজালাল বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিনিধি দল ঢাকায় আসছে আলোচনা করে সামাধান করা হবে- শিক্ষামন্ত্রী ভূমিকম্পে কেঁপে উঠল বিভিন্ন স্থান দেশে প্রথমবার এল জনসনের টিকা ঢাবিতে সশরীরে ক্লাস-পরীক্ষা বন্ধ স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবে বাণিজ্যমেলা শাবিপ্রবির ১১ শিক্ষার্থী হাসপাতালে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ- স্বাস্থ্যমন্ত্রী বিচারপতি-আইনজীবীদের গাউন পরতে হবে না মাঝ আকাশে মুখোমুখি দুই বিমান দাম বাড়ছে না ভোজ্যতেলের: বাণিজ্যমন্ত্রী বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা কেউ থামাতে পারবে না : প্রধানমন্ত্রী কেন্দ্রীয় ব্যাংকের কর্মকর্তাকে দুদকে তলব টেকনাফে আইসের বড় চালান উদ্ধার রামপুরা মহানগরে ঝটিকা অভিযানে ডিএনসিসি মেয়র আতিক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের বন্ধ চেয়ে হাইকোর্টে আবেদন বিএনপি থেকেই এবার বহিষ্কার তৈমূর জেলা প্রশাসক সম্মেলনের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী বাংলাদেশ ও দক্ষিণ কোরিয়ার মধ্যে বাণিজ্য সম্প্রসারণ গত ২৪ ঘন্টায় দেশে করোনা সংক্রমণ ৫ হাজার ছাড়িয়েছে তৃতীয়বারের মতো নারায়ণগঞ্জ সিটি মেয়র নির্বাচিত আইভী কওমি মাদ্রাসায় সব ধরনের রাজনীতি নিষিদ্ধ করোনা মোকাবেলায় ৫৭৪ কোটি ৯ লাখ টাকা বরাদ্দ: ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী করোনাকালীন সহায়তা পাবেন দুই হাজার সাংবাদিক ঈদের জামাত বিষয়ে সিদ্ধান্ত ২৭ এপ্রিল স্বাস্থ্যবিধি না মানলে আবারও কঠোর লকডাউন : ওবায়দুল কাদের আগামী মে মাসে ২১ লাখ টিকা পাবে বাংলাদেশ করোনায় একদিনে সর্বোচ্চ ১০২ জন মৃত্যুর রেকর্ড দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্ত ৩৬ লাখ পরিবারকে আর্থিক সহায়তা দেবে প্রধানমন্ত্রী হেফাজতের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব মামুনুল হক গ্রেফতার দেশে করোনায় একদিনে সর্বোচ্চ ১০১ জনের মৃত্যু বিশ্বব্যাপী করোনার তাণ্ডব থামছে না শনিবার থেকে ৫টি দেশে প্রবাসীদের জন্য বিশেষ ফ্লাইটে চালু খালেদা জিয়া চিকিৎসা নেবেন বাসায় থেকেই সামুদ্রিক জলসীমায় ৬৫ দিন মাছ ধরার নিষেধাজ্ঞা বাবা-মায়ের কবরের পাশে চিরনিদ্রায় সমাহিত মতিন খসরু খালেদা জিয়াকে ‘হাসপাতালে নেয়া হচ্ছে’ দেশে করোনাভাইরাসে মৃত্যু ১০ হাজার ছাড়িয়েছে চিরায়ত বৈশাখের উৎসবে নেই প্রাণের উন্মাদনা দেশে ৮ দিনের সর্বাত্মক লকডাউন শুরু একুশে টেলিভিশনের একুশতম জন্মদিন আজ করোনা পরিস্থিতিতে বাংলা বর্ষবরণ উদযাপন হবে প্রতীকী তারাবীসহ পাঁচ ওয়াক্ত নামাজে ২০ জন মুসল্লি অংশ নিতে পারবে করোনায় একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড প্রখ্যাত রবীন্দ্রসংগীত শিল্পী মিতা হক আর নেই খালেদা জিয়া করোনা আক্রান্ত : স্বাস্থ্য অধিদফতর চলমান লকডাউনের ধারাবাহিকতা চলবে ১২ ও ১৩ এপ্রিল : ওবায়দুল কাদের করোনায় দেশের ইতিহাসে সর্বোচ্চ ৭৭ জনের মৃত্যু ১৪ এপ্রিল থেকে কঠোর লকডাউনে যাচ্ছে সরকার-জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী করোনায় কর্মহীন মানুষদের জন্য ৫৭২ কোটি টাকা বরাদ্দ মানুষকে বাঁচাতে আরো কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণের আভাস প্রধানমন্ত্রীর আগামীকাল ৯-৫টা শপিংমল-দোকান খোলা থাকবে বাংলাদেশকে এক লাখ ডোজ করোনার টিকা উপহার দিলেন ভারতীয় সেনাপ্রধান দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড টেক্সাসেই দাফন হবে সেই বাংলাদেশি পরিবারের লাশ জনসমাগম এড়িয়ে ভার্চুয়ালি নববর্ষ উদযাপন করতে হবে ভ্যাকসিন নিয়ে স্বাস্থ্যবিধি না মানার কারণে করোনায় আক্রান্ত বুধবার থেকে সিটি করপোরেশন এলাকায় বাস চলবে : ওবায়দুল কাদের করোনা মোকাবেলা করাই সরকারের চ্যালেঞ্জ : সেতুমন্ত্রী করোনায় একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যু ও শনাক্তের রেকর্ড রমজানে অফিস সকাল ৯টা থেকে বিকেল সাড়ে ৩টা এসএসসির ফরম পূরণ স্থগিত লকডাউনের কারণে শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখা উন্নয়নের পূর্বশর্ত : প্রধানমন্ত্রী করোনায় একদিনে দেশে শনাক্তের রেকর্ড ৭০৮৭, মৃত্যু ৫৩ আগামীকাল থেকে গণপরিবহন বন্ধ : ওবায়দুল কাদের সংসদ সদস্য আসলামুল হক মারা গেছেন এক সপ্তাহের লকডাউনের ঘোষণা দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি জাপানের প্রধানমন্ত্রী সুগা আগামী মাসে যুক্তরাষ্ট্র সফরে যাচ্ছেন সংবিধান অনুযায়ী যথাসময়ে নির্বাচন হবে : ওবায়দুল কাদের নোভাভ্যাক্স ভ্যাকসিন মারাত্মক কোভিডের বিরুদ্ধে অত্যন্ত কার্যকরী দেশের প্রতিটি উপজেলায় বিশেষজ্ঞ চক্ষু চিকিৎসা সেবা পৌঁছে দেয়া হবে : প্রধানমন্ত্রী বিএনপি’র ৭ মার্চ পালনের ঘোষণা রাজনৈতিক ভন্ডামি ছাড়া আর কিছুই নয় : ওবায়দুল কাদের ঐতিহাসিক ৭ মার্চ উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা নিবেদন আজ ঐতিহাসিক ৭ মার্চ প্রতিবেশী দেশের সমস্যা আলোচনার মাধ্যমে সমাধান করতে হবে-প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে ১০ দিনব্যাপী বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করোনার ভ্যাকসিন নিলেন প্রধানমন্ত্রী বিশ্ববিদ্যালয়ে ক্লাস শুরু ২৪ মে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কবে থেকে কীভাবে খোলা যায় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ ঢাবির ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষে ভর্তির আবেদন প্রক্রিয়া শুরু ৮ মার্চ টিকাদান কার্যক্রমে ৪শ’ কোটি মার্কিন ডলার সহযোগিতার অঙ্গীকার বাইডে রমজানে ভোগ্যপণ্যের দাম যৌক্তিক পর্যায়ে রাখার আশ্বাস ব্যবসায়ীদের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষ্যে ঢাকার আকাশে উড়বে ৮০০ ড্রোন নিউজিল্যান্ড সফরে বাংলাদেশের দল ঘোষণা নোয়াখালির কোম্পানীগঞ্জে কাদের মির্জা-বাদল সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানিভাতা ২০ হাজার টাকা করার ঘোষণা প্রধানমন্ত্রীর রবির শীর্ষ কর্মকর্তাদের জরুরি তলব বিএসইসির সারাদেশে এ পযর্ন্ত করোনা টিকা নিয়েছেন ১১ লক্ষাধিক মানুষ ইয়েমেনে দেড় কোটি মানুষ খাদ্য সংকটে পড়বে: জাতিসংঘ সশস্ত্র বাহিনীকে বাধা দিলে ২০ বছর পর্যন্ত কারদণ্ড পটিয়ায় দুই পক্ষের সংঘর্ষে কাউন্সিলর প্রার্থীর ভাই নিহত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটি বাড়ল ২৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত আবারও বাড়বে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি ঢাকা টেস্টে দ্বিতীয় দিনেই চাপে বাংলাদেশ আল জাজিরার সম্প্রচার বন্ধ হবে হাইকোর্ট নির্দেশ দিলে: তথ্যমন্ত্রী সর্বোচ্চ স্বাস্থ্য সুরক্ষা নিশ্চিত করেই শিক্ষার্থীদের স্কুলে ফেরানো হবে : শিক্ষামন্ত্রী শীতের আবহ আরও সাত দিন থাকতে পারে সারাদেশে এ পর্যন্ত করোনা টিকা নিলেন ৩ লাখ ৩৭ হাজার ৭৬৯ জন মানুষ আদর্শবিহীন রাজনীতি টিকে থাকতে পারে না :প্রধানমন্ত্রী সারাদেশে তৃতীয় দিনে টিকা নিলেন ১ লাখ ৮২ জন যেকোনো সময় খুলবে স্কুল, টিকা নিতে হবে শিক্ষকদের ভিন্ন ইমেজের সিনেমায় তাহসান বিএনপির আন্দোলন হবে কোন বছর, জানতে চান ওবায়দুল কাদের শেখ হাসিনার দূরদর্শিতার কারণেই মাত্র ৫ ডলারে ভ্যাকসিন পাচ্ছেন বাংলাদেশের মানুষ : আইনমন্ত্রী সারাদেশে প্রথম দিনে টিকা নিলেন ৩১ হাজার ১৬০ জন আগামীকাল সারাদেশে টিকা বিতরণ শুরু, এখন পর্যন্ত নিবন্ধন হয়েছে ৩ লাখ ২৮ হাজার আন্তর্জাতিক টেলিভিশন চ্যানেল আল-জাজিরায় প্রচারিত ‘All the Prime Minister’s Men’ শীর্ষক সংবাদের প্রতিবাদলিপি স্বশিক্ষায় শিক্ষিত এক শিল্পীর জীবনকথা মোবাইল অতি-আসক্তি : চক্ষু হাসপাতালে বাড়ছে শিশু রোগী কৃষি ভিত্তিক শিল্প আমরা গড়ে তুলতে চাই-প্রধানমন্ত্রী টিকা বিতরণে এখনও উন্মুক্ত হয়নি মোবাাইল এ্যাপ ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ১২ জনের মৃত্যু শিশুর হাতে স্মার্টফোন দেওয়ার পূর্বে করণীয় কি ? রাশিয়ার তৈরি করোনা ভ্যাকসিন ৯২ শতাংশ কার্যকর মিয়ানমারের নতুন করে নিয়োগ পেলো এগারো মন্ত্রী সাকিবের খেলা নিয়ে যা বললেন কোচ শব্দ করে পড়ার অভ্যাস আমাদের ঐতিহ্য : ড. আরেফিন সিদ্দিক চীনে তৈরি হচ্ছে ভুয়া ভ্যাকসিন’,গ্রেফতার ৮০ বাংলাদেশ আশা করছে মিয়ানমারে গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া সমুন্নত থাকবে মিয়ানমারে সেনাবাহিনীর ক্ষমতা দখল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া এখন সময়ের দাবি বাংলাদেশের প্রশংসায় জাতিসংঘ মহাসচিবের চিঠি বাংলাদেশের কাছে করোনা টিকা চায় হাঙ্গেরি ও বলিভিয়া তীব্র শীতের কবলে দেশ মিরপুরে বেতন-ভাতা পরিশোধের দাবিতে পোশাক শ্রমিকদের বিক্ষোভ ফলাফলের জন্য শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে জমায়েত নিষিদ্ধ

মানসিকতার পরিবর্তনই নারীর ওপর সহিংসতা প্রতিরোধ করতে পারে।

মানসিকতার পরিবর্তনই নারীর ওপর সহিংসতা প্রতিরোধ করতে পারে

নিজস্ব প্রতিবেদক

প্রকাশিত: ১৫:৪১, ৯ ডিসেম্বর ২০২১

মানসিকতার পরিবর্তনই নারীর ওপর সহিংসতা প্রতিরোধ করতে পারে

ছবি: সংগৃহিত

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারীর প্রতি সমাজের দৃষ্টিভঙ্গি পরিবর্তনের আহবান জানিয়ে বলেছেন, আইন নয়, মানসিকতার পরিবর্তনই নারীর ওপর সহিংসতা প্রতিরোধ করতে পারে।
তিনি বলেন, ‘সবচেয়ে বেশি যে বিষয়টা আমাদের জন্য পীড়াদায়ক তা হচ্ছে নারীর প্রতি সহিংসতা। নারী নির্যাতন, ধর্ষণ ও পারিবারিক সহিংসতার বিরুদ্ধে আইন করেছি। কিন্তু, শুধু আইন করল্ইে এ সব বন্ধ করা যাবে না, এ জন্য মানসিকতাও বদলাতে হবে। চিন্তা-চেতনার পরিবর্তন আনতে হবে এবং বিশ্বাসটা হচ্ছে সবচেয়ে বড় জিনিস।’

শেখ হাসিনা আজ সকালে ‘বেগম রোকেয়া দিবস উদযাপন’ এবং ‘বেগম রোকেয়া পদক-২০২১’ প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি’র ভাষণে এ কথা বলেন।
তিনি গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে রাজধানীর ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি অংশ গ্রহণ করেন।
প্রধানমন্ত্রী বলেন, এই বিশ^াসটা করতে হবে যে, নারীরা কেবল ভোগের বস্তু নয়, নারীরা সহযোদ্ধা। তাঁরা সহযোগী, সহযাত্রায় চলতে হবে, সমান অধিকার দিতে হবে-এটা হচ্ছে বাস্তবতা। সেভাবেই কাজ করতে হবে।

শেখ হাসিনা বলেন, আজ শিক্ষায়-দীক্ষায় কর্মসংস্থানে নারী-পুরুষ সমানভাবে কাজ করতে পারছে বলেই তাঁর সরকার দেশকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারছে।
সরকার প্রধান বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু যে আদর্শ নিয়ে বাংলাদেশ স্বাধীন করেছিলেন, সেই ক্ষুধা ও দারিদ্রমুক্ত উন্নত সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়ে তুলতে হলে অবশ্যই আমাদের দেশের নারী সমাজকে জাগ্রত করতে হবে।

কেননা, দেশের অর্ধেক জনগোষ্ঠী যেখানে নারী কাজেই তাদের পেছনে রেখে উন্নয়ন সম্ভব নয়। এটা জাতির পিতা যেমন মনে করতেন তেমনি বেগম রোকেয়াও তাঁর লেখনিতে বলে গেছেন।

নারীদের বেশি লেখাপড়া শিখিয়ে কী হবে তারাতো পরের ঘরে চলে যাবে-এ ধরণের মানসিকতা আমাদের সমাজে বিদ্যমান ছিল উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, সে কারণেই জাতির পিতার পদাংক অনুসরণ করে তাঁর সরকার নারীদের অর্থনৈতিক সাবলম্বীতা নিশ্চিত করার বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করেছে।

মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফহিলাতুন নেসা ইন্দিরার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সায়েদুল ইসলাম স্বাগত বক্তৃতা করেন।
প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন।

নারী শিক্ষায় কুমিল্লার অধ্যাপক হাসিনা জাকারিয়া বেলা, নারী অধিকার প্রতিষ্ঠায় যশোরের অর্চনা বিশ্বাস, নারীর আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে অবদান রাখায় কুমিল্লার শামসুন্নাহার রহমান পরাণ (মরণোত্তর), সাহিত্য ও সংস্কৃতির মাধ্যমে নারী জাগরণের জন্য ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক ও রোকেয়া হলের প্রভোস্ট ড. জিনাত হুদা এবং পল্লী উন্নয়নে কুষ্টিয়ার গবেষক ড. সারিয়া সুলতানা এ বছরের বেগম রোকেয়া পদক লাভ করেন।

পদক প্রাপ্তদের প্রত্যেকে রেপ্লিকাসহ স্বর্ণপদক, সম্মাননাপত্র এবং নগদ অর্থের চেক পেয়েছেন। পরে বিজয়ীদের পক্ষে নিজস্ব অনুভূতি ব্যক্ত করে অধ্যাপক হাসিনা জাকারিয়া বেলা ও অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন।

অনুষ্ঠানে আজকের দিনটি তাঁর কন্যা এবং বাংলাদেশের অটিজম আন্দোলনের অগ্রপথিক সায়মা ওয়াজেদ পুতুলের জন্মদিন উল্লেখ করে সকলের কাছে তাঁর জন্য দোয়া চান প্রধানমন্ত্রী।

তিনি বলেন, পুতুলের ব্যক্তিগত উদ্যোগেই আজ অটিজম আক্রান্তরা সমাজের মূলধারার সঙ্গে মিশে যেতে পারছে, স্বীকৃতি পেয়েছে। অটিজম শিশুদের কোন মা-বাবাই লোক লজ্জার ভয়ে এখন আর লুকিয়ে রাখেন না। সেই মানসিকতারও পরিবর্তন এসেছে।

নারী শিক্ষা এবং নারীর স্বনির্ভরতার ওপর জাতির পিতা সব সময় গুরুত্ব দিতেন উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নিজের লেখা ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’, ‘কারাগারের রোজনামচা’ এবং ‘আমার দেখা নয়াচীন’ বইয়ে তিনি সর্ব শ্রেনীর নারীর অধিকারের কথা স্পষ্টভাবে উল্লেখ করেছেন। তাঁদের সমস্যা, দুঃখ-কষ্ট সমাধানের কথাও তিনি বলেছেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘জাতির পিতা লেখাপড়ার প্রতি সব সময় গুরুত্ব দিতেন এবং বলতেন, একটা মেয়ে যদি ১০ টাকা কামাই করে তার আঁচলে বেঁধে পরিবারে আসে তাহলে সেই পরিবারে মেয়েদের একটা মূল্য থাকে।’

শেখ হাসিনা বলেন, মেয়েরা উপার্জন করলে তাদের যে অর্থনৈতিক স্বাবলম্বীতা আসবে সে কথাই জাতির পিতা বলে গেছেন এবং যে কারণে নারী শিক্ষা অবৈতনিক করে দেন তিনি। কারণ, তিনি মনে করতেন শিক্ষাই নারী মুক্তির একমাত্র পথ।

কর্মক্ষেত্রে নারীদের সুযোগ করে দিতে সরকারের বিভিন্ন পদক্ষেপের কথা তুলে ধরে সরকার প্রধান বলেন, আমরা প্রতিটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষক নিয়োগের ক্ষেত্রে ৬০ ভাগ নারী শিক্ষক বাধ্যতামূলক করেছি। এই সিদ্ধান্তের পর অনেক বাবা-মা মেয়েদের আর বাধা দেয়নি। অন্তত মেয়ে যে একটা চাকরি পাবে সেটা তারা উপলব্ধি করতে পেরেছেন। তা ছাড়া কমিনিটি ক্লিনিকে মেয়েদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা হচেছ। সারাদেশের ইউনিয়ন পর্যায়ে গড়ে তোলা ডিজিটাল সেন্টার গুলোতে উদ্যোক্তা দু’জনের একজন নারী হতে হবে। আমরা যে বিনা মূল্যে গৃহহীণকে ঘর দিচ্ছি সেখানেও নারী-পুরুষ দু’জনের নামে মালিকানা থাকলেও সমস্যার সৃষ্টি হলে মালিকানা নারীর নামেই বহাল থাকবে। পাশাপাশি নারী উদোক্তাদের কম সুদে ঋণও দেয়া হচ্ছে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, শুধু তাই নয়, নারীকে তার কাজের স্বীকৃতি দিতে আমরা এ বছর থেকে জাতীয় পর্যায়ের সম্মাননা ’বঙ্গমাতা পদক’ প্রবর্তন করেছি।
সামাজিক অচলায়তন ভেঙে নারীদের এগিয়ে যাওয়ার আহ্বান জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন,
কিছু বাধা আসে, আসবে। সেই বাধা অতিক্রম করেই এগিয়ে যেতে হবে।

এ প্রসঙ্গে তিনি বেগম রোকেয়া’র অপর একটি লেখনির উদ্ধৃতি তুলে ধরেন।
বেগম রোকেয়া বলেছিলেন, ‘আমরা সমাজের অদ্ধাঙ্গ হইয়া পড়িয়া থাকিলে সমাজ উঠিবে কিরুপে?’
প্রবল বাধার মুখেও দেশে প্রমিলা ফুটবল চালুর প্রসঙ্গ তুলে ধরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, খেলাধুলায় মেয়েদের তো অংশ গ্রহণই করতে দিত না। যাই হোক দ্বিতীয় বার যখন সরকারে আসলাম, অন্যভাবে ব্যবস্থা নিতে হয়েছে।

তিনি সে সময়ে স্কুল পর্যায়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গোল্ডকাপ এবং বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা গোল্ড কাপ ফুটবল টুর্ণামেন্ট আয়োজন এবং প্রাথমিক স্কুল পর্যায় থেকে ছেলে ও মেয়েদের ফুটবল দল গঠনের মাধ্যমে ছোটবেলা থেকেই এ জন্য শিক্ষার্থীদের গড়ে তোলার উদ্যোগও তুলে ধরেন।

তিনি বলেন, এভাবে ছোট বেলা থেকে শুরু করায় এখন আর সেই বাধা নেই। অর্থাৎ অচলায়তন ভেঙে একবার এগিয়ে যেতে পারলে আর কোন বাধা আসবে না।
আমাদের ধর্মে নারীর অধিকার প্রদানের প্রসঙ্গে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমাদের ইসলাম ধর্মে তো মেয়েদের অধিকার দেওয়াই আছে। সেখানেইতো সম অধিকারের কথা বলা আছে। কিন্তু তারপরও আমাদের দেশে কিছু এ ধরনের বাধা আসে, আসবে। সেই বাধা আমাদের অতিক্রম করেই এগিয়ে যেতে হবে।

সরকার প্রধান বলেন, পুরুষ শাসিত সমাজ আমরা বলি। কিন্তু মেয়েদের ছাড়া পুরুষরা কী পথ চলতে পারে? পারে না। মায়ের পেটে জন্ম নিতে হবে, বোনের হাত ধরে হাঁটা শিখে, বড় হয়ে স্ত্রীর ওপর নির্ভরশীল থাকে, বৃদ্ধ হয়ে গেলে তো কন্যা সন্তানই বেশি দেখে, সেই যতœ নেয় বেশি, এটাও তাদের মনে রাখতে হবে।
সমাজ ও রাষ্ট্রের সর্বক্ষেত্রে সফলতার সঙ্গে নারীদের দায়িত্ব পালনের কথা তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন, বেগম রোকেয়া যে স্বপ্ন দেখেছিলেন আমি মনে করি অনেকটাই আমরা পূরণ করতে সক্ষম হয়েছি।

তাঁর সরকারই আদালতের বিচারপতি থেকে শুরু বিভিন্ন চ্যালেঞ্জিং পেশায় নারী অন্তর্ভূক্তি নিশ্চিত করেছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, অনেক ঝুঁকিপূর্ণ জায়গায় যেয়ে আমাদের মেয়েরা কাজ করে। আমাদের যুদ্ধ বিমানও তারা চালাচ্ছে। কাজেই সব দিক থেকে মেয়েরা কিন্ত পিছিয়ে নেই। কাজেই এটা সবচেয়ে বড় কথা পুরুষরা যেটা পারে নারীরা তার চেয়ে আরও ভালো পারে, বেশি পারে এতে কোন সন্দেহ নেই। এটাই প্রমাণ হয়েছে।

শেখ হাসিনা বলেন, বেগম রোকেয়া আমাদের আদর্শ। তিনি নারীদের পথ দেখিয়েছেন। তার সময়ে সমাজে নারীদের লেখা পড়া যেন অপরাধ ছিল। সেই অবস্থা থেকে তিনি নারী জাগরণে কাজ করেছেন। এখন মেয়েরা কোন দিক থেকে পিছিয়ে নেই।  

তিনি দেশের শতভাগ গৃহে আলো জ¦ালবার পাশাপাশি দেশের সকল গৃহহীণকে ঘর করে দেয়ার মাধ্যমে একটা ঠিকানা গড়ে দেওয়ায় তাঁর সংকল্প পুণর্ব্যক্ত করে বলেন, এর পাশাপাশি মানুষের মৌলিক অধিকারগুলো পূরণ করে একটি শোষণ-বঞ্চনাহীন সমাজ গড়ে তোলার লক্ষে তাঁর সরকার প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।
শেখ হাসিনা তাঁর সরকারের সাফল্যের জন্য জনগণকে কৃতিত্ব দিয়ে ভবিষ্যতেও এই অগ্রযাত্রা অব্যাহত রাখার  প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন।